হারামি মুভি রিভিউ ২০২০।ক্রাইম মুভি

মুভি :হারামি
ক্যাটাগরি :ক্রাইম 

অভিনয়ে: ইমরান হাশমি।

“What’s right, What’s wrong. Who follow these rules in this Harami city?”.

এর বাংলা মানে এই দাঁড়ায় , কি ঠিক , কি ভুল। কে মানে এই হারামি শহরের নিয়ম কানুন ?
এই ধরনীতে বেঁচে থাকার জন্য পেটের তাগিদে সবাইকে কাজ করতে হয়। কেউ করে ভালো কাজ বা কেউ খারাপ।

পরিবেশ পরিস্থিতিতে পড়ে মানুষ খারাপ কাজ করতে বাধ্য হয়।খারাপ কাজ করার পর  অপরাধবোধকে মানুষ চাইলেও উপেক্ষা করতে পারেনা।

তার আসল পরিচয় যে এখানেই।

হারামি মুভি কাহিনী সংক্ষেপ :


হারামি মুভি এর গল্পটা কিশোর পকেটমার গ্যাংদের নিয়ে। রেলস্টেশনে এরা পকেটমেরে বেড়ায়। এইযে যাদের পকেট থেকে টাকা মেরে দিচ্ছে তাদের কিরকম ক্ষতি হতে পারে পকেটমারেরা কি ভেবে দেখে কখনো!

এখন বলতে পারেন এসব ভাবার তাদের সময় কই? তাহলে আপনার পরিচয় কিসে!  সুস্হ সুন্দরভাবে সবাই তো বেঁচে থাকতে চায়।
মুভির গল্পটা খুবই বাস্তবধর্মী ও অনুপ্রেরণামূলক।

পরিচালক সুন্দরভাবে সেটা পর্দায় তুলে ধরেছেন। এমন দৃশ্য আমরা আমাদের চারপাশে তাকালেই দেখতে পাবো।

রেললাইনের ধারে এমন কত কিশোর পকেটমাররা ঘুরে বেড়ায়।এসব কাজ করতে তারা বাধ্য হতে হয় ।

তাদেরও সুন্দরভাবে বেঁচে থাকার অধিকার আছে।কারণ জন্ম থেকেই সে পকেটমার নয়।মুভির শুরু থেকেই গল্পে ঢুকে যাবেন। মুভির কিছু জায়গা Slumdog millionaire এর মতো।

লোকেশন রেললাইনের ধারে বস্তিতে করা। রেললাইনের পরিবেশটা সুন্দরভাবে ক্যামেরাবন্দী করা হয়েছে।

প্রধান চরিত্রে কিশোর অভিনেতার অভিনয় বেশ ভালো লেগেছে।পুরো মুভিটাই তাকে নিয়ে করা। সেই সাথে ইমরান হাশমির অভিনয় বরাবরই।এখানে ভিন্নরকম ভাবে দেখলাম তাকে।

খলনায়কের ভূমিকায় ছিলেন, অাসলে খলনায়ক কিনা সেটা পরিচালক আপনাদের উপর ছেড়ে দিয়েছেন।অভিনয় সেই সাথে খুব সুন্দর ডায়লগ পর্দায় যতক্ষণ ছিলেন একদম সাবলীল।

লোকেশন, সিনেমাটোগ্রাফি ও আবহ সংগীত  উপভোগ করেছি বেশ। 


চমৎকার এই মুভিটি যদি উপভোগ করতে চান তবে আপনার বাসার ওয়াইফাই সার্ভার থেকে ডাউনলোড করে নিন।অথবা mlwbd এর মতো পরিচিত দেশী ওয়েব সাইট থেকেও ডাউনলোড করতে পারেন ।

ট্রেইলার

 

রিভিউ :সামিউল হক নিঝুম

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়

পেরিয়ড পেট ব্যথা কারণ এবং করণী সমন্ধে জানুন

বিজ্ঞান নিউজ পেতে এই সাইটেও ভিজিট করতে পারুন

Leave a Comment