ফ্রি ব্লগ সাইট (free blog site): ইনকাম কিভাবে আসে ব্লগার থেকে

আমরা যারা নতুন অবস্থায় ওয়েবসাইট খুলার পরিকল্পনা করি তারা প্রথমেই ব্লগাডটকম সিলেক্ট করি। এবং প্রথমেই একটা দিধাদন্দ্বে পরি ব্লগার কি , কিভাবে এই সাইট খুলে , ব্লগার আসলে কিভাবে কাজ করে? অনেকেই বলে ফ্রি ব্লগ সাইট বানিয়ে প্রতি মাসে ১০০০ ডলার পর্যন্ত আয় করে।আবার যখন ইউটিউবে ঢুকি তখনি দেখি বল্ড হরফে ইংরেজি হরফের “B” এর একটি লগু এবং ব্লগার থেকে মাসে ইনকাম করুন এত টাকা এমন বহুল ভিডিও।

ফ্রি ব্লগ সাইট ব্লগারের খুটিনাটি

আমি ধাপে ধাপে আপনাদের সকল প্রশ্নের সমাধান করতেই এই ব্লগার বিষয়টা উল্লেখ করা । এই ব্লগারে সাইট খুলা থেকে ধরে এর শেষ পর্যন্ত আমরা শিখবো। এ সকল কিছু আপনাদের বুঝাতে গিয়ে যদি ভাগ্যক্রমে কিছু হাতের ফাক দিয়ে থেকে যায় তাহলে আপনাদের জন্য দ্বিমুখী যোগাযোগ তথা আমার কমেন্ট বক্স ত খুলা থাকবে আপনারে আপনাদের সমস্যা উল্লেখ করবেন আর আমি ধাপে ধাপে সমস্যা সমাধান করে যেতে থাকব।

আজকে আমরা এই আর্টিকেল পড়ে যা বুঝার চেষ্টা করবঃ

  •   ব্লগার (blogger) কি?( উদাহরণ সহ)
  •  ব্লগার এবং ব্লগস্পট (blogspot)
  •   সাবডোমেইন (subdomain)
  •  ব্লগার দিয়ে কিভাবে টাকা ইনকাম হয়?
  •   ব্লগ সাইটে টাকা ইনকামের মাধ্যম সমূহ
  •   সাবডোমেইন এবং টপল্যাভেল ডোমেইনে যাওয়া
  •   ব্লগারে কি কি সুযোগ আছে ইত্যাদি।

সহজ সরল ভাষায় জানবো ব্লগার কি?  এবং ব্লগার সাথে সংশ্লিষ্ট বিষয় সমূহ এর বিবরণ।

ব্লগার হল একটি ওয়েবসাইট। এক কথায় বলে দিলাম এতে ত কিছুই বুঝবেন না। চলুন একটু উদাহরণ সরূপ ব্লগারকে বুঝি।আপনি অবশ্যই চিনেন Facebook.com যা বর্তমানে সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম।তাহলে এবার জিজ্ঞেস করেন ফেসবুক কি? আমি বলব ফেসবুক একটি ওয়েবসাইট। এখন ধরুন আপনি একটি ব্রাউজার সিলেক্ট করে লিখলেন facebook.com তাহলে দেখবেন আপনার ব্রাউজার আপনাকে নিয়ে গেছে m.facebook.com অর্থাৎ আপনি মোবাইল দিয়ে ফেসবুকডটকমে ঢুকেছেনে তাই আপনাকে m.facebook.com এ নিয়ে গেছে।

এখানে “m.”  হলো facebook.com এর সাবডোমেইন হিসেবে  কাজ করছে । আবার যখন আপনি ল্যাপটপে facebook.com এ ভিজিট করবেন তখন দেখবেন আপনাকে web.facebook.com এ নিয়ে গেছে। এখানে “.web.” হল facebook.com এর একটি সাবডোমেইন হিসেবে কাজ করছে। এখন মনে করেন আপনার নাম জালালমিয়া, এখন আপনি একটা ডোমেইন কিনলেন জালালমিয়াডটকম তাহলে আপনার এই জালালমিয়াডটকমের পূর্বে ডট দিয়ে যতখুশি ডোমেই আপনি ত্রিয়েট করতে পারবেন।

এখন ফেসবুকের মূল বিষয় হল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম

আবার ধরুন বিডিনিউজ২৪ডটকমের বিষয় হল নিউজ

তাহলে এবার চিন্তা করুন ব্লগারডটকমের বিষয় কি ? ব্লগারডোটকমের বিষয় হল আপনাকে সাবডোমেইন  ক্রিয়েট বা সৃষ্টি করতে দিবে। আপনি ভিজিট করলেন blogger.com তাহলে আপনাকে নিয়ে যাবে ব্লগারডটকমের সাইটে। এখন তাদের সাবডোমেইন ক্রিয়েট করতে দিবে blogspot.com এর আন্ডারে। অর্থাৎ এখন আপনাকে চয়েস করতে দিবে। এখন আপনার নাম জালাল তাহলে আপনি মনে করলেন যে আপনার নামে ব্লগারডটকমের আন্ডারে একটি ওয়েবসাইট খুলবেন। তাহলে আপনি jalal .blogspot.com  খুলবেন। এখন আমরা জানি ইন্টারনেট একটি ঠিকানা একজনেই ব্যবহার করতে পারে। সেক্ষেত্রে আপনার আগে কত জালাল আইসা এই ফ্রি সাইটে তার সাবডোমেইন খুলে নিছে সেক্ষেত্রে আপনাকে একটি ইউনিক নাম খুজে নিতে হবে যেটি এখনো খালি।

তাহলে এখন বুঝলাম, ব্লগার ডটকম হল একটি ওয়েবসাইট যার আন্ডারে নিজস্ব সাবডোমেইন খুলে নিজের সাইট হিসেবে পরিচালনা করার সুযোগ পাই।

এখন কথা হল, এই ব্লগার এর মালিক কে ? আর কেনইবা ফ্রিতে তাদের অধীনে সাবডোমেইন খুলতে দিচ্ছে?

আসলে এর মালিখ সবচেয়ে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিণ গুগুল । প্রথমে এটি অন্য কোম্পানির থাকলেও গুগুল এই ব্লগার ডটকম এর আন্ডারে ব্লগস্পটকমকে কিনে নেয়। আর ফ্রিতে দিচ্ছে, গুগুলযেহেতু একটু বড় কোম্পানি তাদের টাকাপয়সার অভাব নাই। মনে করেন বিশাল একটা সার্ভার বানাইয়া অইডা রাইখা দিছে আপনারা তথা আমরা যারা নিজেরা সার্ভার কেনার টাকা পয়সা নাই তারা যাতে করে নিজেদের ইচ্ছা ,আবেগ ,অভিজ্ঞতা ইত্যাদি ওয়ার্ল্ডওয়াইড ছড়িয়ে দিতে পারি।

ব্লগার সাইট দিয়া টাকা কিভাবে ইনকাম করে?

আপনি যখন আপনার একটা নিজস্বসাইটে তথ্য ভরতে থাকবেন। তখন গুগলের আছে রোবট , সে মনে করেন আপনার সাইট ঢুকে এই তথ্যসমূহ ইন্ডেক্স করবে তার সার্চ ইঞ্জিনে, এইভাবে আপনার ভাষা যদি হয় ইংলিশ তাইলে মনে করেন সারাবিশ্বের মানুষই , গুগুল সার্চের কিওয়ার্ড ভিত্তিক আপনার সাইটে ভ্রমন করবে। আর সে সময় আপনার সাইটে যদি গুগল , ইয়াহু এমন বিজ্ঞাপণ প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন থাকে এবং যে সার্চ দিয়া আপনার সাইটে আসসে সে মনে করেন অই বিজ্ঞাপণে ক্লিক করলো।

আপনি মনে করেন নির্দিষ্ঠ পরিমাণ ডলার পেয়ে যাবেন।

এভাবেই মনে করেন লক্ষ লক্ষ ব্লগার তাদের মাসিক ভালমানে টাকা ইনকাম করে নেয়। তারপর আপনার সাইটের তথ্যগুলো খুবি মূল্যবান এবং আপনার নিজের মত করে লেখা তাহলে ভিজিটর এর সংখ্যা দিনদিন বাড়তেছে, তাইলে মনে করেন লোকাল মার্কেটে ব্যবসায়ীরাও আপনার সাথে যোগাযোগ করবে। এতেও আপনি নির্দিষ্ট পরিমান টাকা ইনকাম করে নিবেন। আবার মনে করেন আপনি বড় বড় প্রতিষ্ঠান যেমন আমাজন, দারাজ এদের সাথে এফিলিয়েট করেও টাকা ইনকাম করতে পারবেন। অর্থাৎ আপনার সাইটের তথ্য মূলবান হলে ভিজিটর আসবে, আর ভিজিটর আসলে ইঙ্কাম অটো হবে।

আবার প্রশ্ন, মনে করলাম যে আমি সাবডোমেইনে রাখবনা আমি নিজের ডোমেইন তথা টপলেভেলের ডোমেইন এ আনতে চাই, সেক্ষেত্রে কি সুযোগ আছে?

হ্যা আছে, মনে করেন এখন আপনার সাইট jalal .blogspot.com ,এখন আপনি একট ডোমেইন বিক্রয় প্রতিষ্ঠান থেকে কিনলেন jalal .com ,তাহলে আপনি jalal .blogspot.com থেকে jalal .com যাওয়ার সুযোগ আছে।যারা কেবল ভাবতেছেনে ব্লগসাইট শুরু করবেন তাদের জন্য এখন নিয়মিত আমি থাকছি, ব্লগার এর খুঁটিনাটি আজকে আপাতত সহজসরল ভাবে বর্ণণা করলাম। এখন পরের ধাপ থেকে আমরা সরাসরি ব্লগার সাইট ক্রিয়েট করতে চলে যাবো এবং ধাপে ধাপে আমরা একেবারে এর শেষে দেখে ছাড়বো।আজ এপর্যন্তই সবাই ভাল থাকুন, ধন্যবাদ।

আমাদের আরোও লেখা পড়তে চাইলে এখানে

I am the Admin Of Jibhai.com and also part of jibhai.com

Leave a Comment